জীবননগর উথলীতে স্বামীর অনুপস্থিতিতে এক আদিবাসী নারী উপর ধর্ষণের অপচেষ্টার অভিযোগ

তাহসানুর রহমান শাহ জামালঃ

জীবননগর উপজেলার ইউনিয়নের উথলি বাজার পাড়ায় ভাড়াটিয়া আদিবাসীর গৃহকর্মীর (২৮)ওপর ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগ। গত মঙ্গলবার (২৫মে) রাত সোয়া ২ টার দিকে তার স্বামী বাসায় না থাকায় এই ঘটনা ঘটে ।এই ঘটনার পরে গৃহকর্মীর নিজের জীবন নগর থানায় অভিযুক্ত তিন জনের নামে জোরপূর্বক ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ করে।

জানা গেছে, আদিবাসী উথলী গ্রামের হাসান আলীর বাসায় ৫ বছর যাবত ভাড়াটিয়া আছেন। গত কয়েকদিন আগে তার স্বামী কোন এক কাজে তার নিজ গ্রামে আলমডাঙ্গাই যান এবং এই সুযোগে উথলী গ্রামের একই পাড়ার কুলসুম বেগম ছেলে রবিউল হক (২৫) রেলওয়ে খালাসী কর্মরত আব্দুল্লাহ (২৮) গভীর রাতে আদিবাসী রুমে ঢুকে  জোরপূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা করেন।

এক পর্যায়ে যখন ধস্তাধস্তি অবস্থায় মহিলাটি বাইরে বের হওয়ার চেষ্টা করলে। দরজার সামনেই একই গ্রামের, একই পাড়ার আবুল কালামের ছেলে,এ সময় দরজার সামনে দাঁড়ালে। সে কিছুটা স্বস্তি ফেলে কিন্তু তা নয়। সেও তাদের সঙ্গে যুক্ত হয়ে দরজা আটকে রেখে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। এবং এমন অবস্থায় কোন উপায় না পেয়ে জোরে চিৎকার করা শুরু করে।

তার চিৎকার শুনে এলাকাবাসী ঘটনাস্থলে আসার আগেই অভিযুক্ত ৩ জন পালিয়ে যায়। তার স্বামীর অনুপস্থিতিতে  দুষ্কৃদল এই সুযোগ নিয়েছে বলে জানিয়েছেন এলাকাবাসী।

এলাকাবাসী আরো বলেন,তারা বাশ ও বেতের তৈরি বিভিন্ন উপকরণ তৈরি করে গ্রামের বাড়িতে বাড়িতে গিয়ে বিক্রি করে। এবং এই টাকা দিয়ে পরিবার পরিচালনা করে থাকে স্বামী-স্ত্রী।বিষয়টি জীবননগর থানায় অভিযোগ দায়ের হলে।

জীবননগর থানার ওসি সাইফুল ইসলাম (কাজল )বলেন, অভিযোগটি দূরত্ব তদন্তের মাধ্যমে অভিযুক্তদের কঠিন থেকে কঠিন তরো ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *