জীবনের শেষ রক্তবিন্দু থাকা পর্যন্ত বিচার চান শিপ্রা: র‌্যাব

পুলিশের গুলিতে নিহত অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদের সহযোগী শিপ্রা দেবনাথ জীবনের শেষ রক্তবিন্দু দিয়ে হলেও এ ঘটনার সুষ্ঠু বিচার দেখে যেতে চান বলে র‌্যাবের জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছেন।সোমবার (১০ আগস্ট) রাজধানীর উত্তরায় র‌্যাব সদর দপ্তরে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে শিপ্রার বরাত দিয়ে এসব কথা জানায় র‌্যাব। কক্সবাজারের রামু থানার মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের মামলায় শিপ্রা জামিনে মুক্ত হওয়ার পর তার সঙ্গে কথা বলেছে র‌্যাব।সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক লে. কর্নেল আশিক বিল্লাহ জানান, তিনি (শিপ্রা) র‌্যাবের জিজ্ঞাসাবাদে বলেছেন, শেষ রক্তবিন্দু থাকা পর্যন্ত বিচার চান। তার সঙ্গে যে অন্যায় হয়েছে। তিনি জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত এই ঘটনার ন্যায় বিচার চেয়ে যাবেন।তিনি আরো জানান, সাহেদুল ইসলাম ওরফে সিফাতের সঙ্গে র‌্যাব কথা বলবে। শিপ্রা এবং সিফাতকে সব ধরনের নিরাপত্তা দেয়া হবে।

মেজর (অব.) সিনহা হত্যাকান্ডের পর টেকনাফ থানায় দুটি ও রামু থানায় একটিসহ যে তিনটি মামলা করেছিল পুলিশ, সেই মামলাগুলোর তদন্তও র‌্যাব করবে। এ ব্যাপারে আদালতের অনুমতি পাওয়া গেছে বলে জানান তিনি।র‌্যাবের তদন্ত দল মনে করছে, সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার দাশ, পরিদর্শক লিয়াকত আলী ও নন্দদুলাল রক্ষিতকে জিজ্ঞাসাবাদের আগে এ ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী ও সাক্ষী সিফাত ও শিপ্রার সঙ্গে বিস্তারিত কথা বলা প্রয়োজন।এর আগে রোববার (৯ আগস্ট) কক্সবাজারের রামু থানার মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনের মামলায় শিপ্রা জামিনে মুক্ত হয়েছেন। সোমবার সিনহার তথ্যচিত্র নির্মাণ কাজের সহযোগী সিফাত কারাগার থেকে মুক্তি পান।

র‌্যাব জানিয়েছে, সোমবার দুপুর দুইটার দিকে সিফাতকে কারাগার থেকে মুক্তি দেওয়া হয়। সিফাত ও শিপ্রা দু’জনই তাদের নিকতাত্মীয়ের বাসায় আছেন। তাদের সঙ্গে র‌্যাব ও তদন্তকারী কর্মকর্তার সঙ্গে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *